করোনা ঠেকাতে পুরোপুরি লকডাউনে যাচ্ছে পঞ্চগড় জেলার সবকটি উপজেলা

শেয়ার করুন

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ২ মাসের ও বেশি সময় ধরে সাধারণ ছুটি রাখা হয়েছিল। অবশেষে ৩১ মে খুলে দেয়া হয়েছে সরকারি ও বেসরকারি অফিস। এদিকে সীমিত পরিসরে চালু করা হয়েছে গণপরিবহনও। এরপর থেকেই দেশে করোনার সংক্রমনের প্রকোপ আরো বাড়ছেই।

এরইমধ্যে করোনা মহামারীর বিস্তারে বিশ্বের শীর্ষ ২০ দেশের তালিকায় বাংলাদেশ ঢুকে পড়েছে। এ অবস্থায় সরকার আবারও ‘লকডাউন’ এর পথে যাচ্ছে। তবে এবার পুরো দেশ একসঙ্গে ‘লকডাউনে’ যাবে না সরকার। আক্রান্তের আধিক্য বিবেচনায় রেড জোন, ইয়েলো জোন ও গ্রিণ জোনে চিহ্নিত করে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বাস্তবায়ন হবে স্বাস্থ্যবিধি ও আইনি পদক্ষেপ।

সরকারের শীর্ষ পর্যায় থেকে এ কথা জানানোর পর স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে দেশের তিনটি বিভাগ, ৫০টি জেলা ও ৪০০টি উপজেলাকে পুরোপুরি লকডাউন (রেড জোন বিবেচিত) দেখানো হচ্ছে।

এর মধ্যে আংশিক লকডাউন (ইয়েলো জোন বিবেচিত) দেখানো হচ্ছে পাঁচটি বিভাগ, ১৩টি জেলা ও ১৯টি উপজেলাকে। আর লকডাউন নয় (গ্রিণ জোন বিবেচিত) এমন জেলা দেখানো হচ্ছে একটি এবং উপজেলা দেখানো হচ্ছে ৭৫টি।

মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে  আপডেট করা তালিকায় পঞ্চগড় জেলার মধ্যে পুরোপুরি লকডাউন বলা হচ্ছে জেলার ৫ টি উপজেলাকেই। জেলার পঞ্চগড় সদর, তেতুলিয়া, আটোয়ারী, বোদা ও দেবীগঞ্জ উপজেলাকেই মন্ত্রণালয়ের ওয়েবাসইটে রেড পুরোপুরি লকডাউন  (রেড জোন বিবেচিত ) দেখানো হয়েছে।

এরই মধ্যে এখন পর্যন্ত পঞ্চগড় জেলায় মোট করোনা ভাইরাসে শনাক্ত হয়েছে ৮৭ জন। তারমধ্যে পঞ্চগড় সদরে ২৫ জন, তেঁতুলিয়া ১২, বোদা উপজেলায় ০৭, আটোয়ারী উপজেলায় ৭ জন, ও দেবীগঞ্জ উপজেলাতেই ৩৬ জন শনাক্ত। জেলায় মোট ৮৭ জন শনাক্তে মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ২ জনের। এবং আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৫ জন।

যেভাবে নিউজ পাঠাবেননিউজ পাঠাতে ইচ্ছুক যে কেউ [email protected] এই ঠিকানায় নিজের নাম, ঠিকানা ও মোবাইল নাম্বার দিয়ে নিউজ পাঠাতে পারেন। আমরা যাচাই বাচাই শেষে আপনার নিউজ যথারীতি প্রকাশ করবো। উল্লেখ্য, নিউজগুলো অবশ্যই পঞ্চগড় জেলার সম্পর্কিত হতে হবে।

এখানে আপনার মন্তব্য  জানান

মন্তব্য করুন

এছাড়াও আরো দেখুন
Close
Back to top button